নাসার ক্যামেরায় আমাজন বনের গহিনে থাকা ‘স্বর্ণ নদী’

0
15

মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা- নাসা পেরুর আমাজন রেইনফরেস্টের সোনার খনির কিছু বিরল ছবি প্রকাশ করেছে। নাসা জানিয়েছে, এই ‘স্বর্ণ নদী’গুলো প্রকৃতপক্ষে বিশাল আকৃতির গর্ত যা অবৈধভাবে খনন করা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

সাধারণত লোকচক্ষুর আড়ালে থাকা এই গর্তগুলো সূর্যের আলোয় প্রতিফলিত হয়ে আলোকিত হয়েছে যা নাসার ছবিতে ধরা পড়েছে। গত ডিসেম্বরে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনের এক মহাকাশচারী এই ছবিগুলো তুলেছেন।

নাসা জানিয়েছে, এই গর্তগুলোতে শ্রমিকরা স্বর্ণের খোঁজ করে থাকে যেখানে শত শত জলাধারে পানি ভর্তি রয়েছে। এগুলো কাদা দিয়ে ঘেরা এবং গাছাপালা পরিষ্কার করে এগুলো তৈরি করা হয়েছে।

আন্দিজ আমাজন প্রকল্পের ২০১৯ সালের এক গবেষণায় জানা যায়, ২০১৮ সালে সোনার খনির কারণে পেরুর আমাজনের ২২ হাজার ৯৩০ একর বন ধ্বংস হয়েছে।

স্বর্ণের ক্রমবর্ধমান দাম বৃদ্ধি দেখে স্থানীয় দরিদ্র অধিবাসীরা এসব খনিতে কাজ করে অর্থ আয় করতে আগ্রহী হন। ২০১২ সালের হিসাবে মতে সে সময় এই অঞ্চলে ৩০ হাজার খনি শ্রমিক কাজ করত।

লা পামপা নামে পেরুর আরেক অংশে প্রায় একযুগ চলার পর ২০১৯ সালে সেখানকার সোনার খনির কাজ সরকারি আদেশে স্থগিত করা হয়। খনিতে কাজ করা পাঁচ হাজার শ্রমিককে তখন অব্যাহতি দেয়া হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে